সারাদেশ

ওয়াকিটকিতে পুরান ঢাকার ১২ কিলোমিটার নিয়ন্ত্রণ করতেন ইরফান

নিজস্ব প্রতিবেদক : সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের ছেলে ওয়ার্ড কাউন্সিলর ইরফান সেলিমের বাসা থেকে মোট ৩৮টি ওয়াকিটকি উদ্ধার করেছে র‌্যাব। আর এসব ওয়াকিটকি ব্যবহার করে তিনি বাসায় বসেই পুরান ঢাকার ১২ কিলোমিটার পর্যন্ত নিয়ন্ত্রণ করতেন বলে জানিয়েছে র‍্যাবের সংশ্লিষ্ট সূত্র।

র‍্যাব সূত্রে জানা যায়, গ্রেপ্তারের পর জিজ্ঞাসাবাদে বিপুল পরিমাণ ওয়াকিটকি রাখার কারণ সম্পর্কে জানিয়েছে ইরফান। এগুলোর মাধ্যমে তিনি নিজ  বাসায় বসেই পুরান ঢাকার ও আশপাশের পাঁচ থেকে ১২ কিলোমিটার পর্যন্ত নিয়ন্ত্রণ করতে পারতেন। তার নেতাকর্মীদের হাতে থাকা ওয়াকিটকির মাধ্যমে তিনি সকল বিষয়ে যোগাযোগ রাখতেন এবং দ্রুত যে কোনো কাজের আদেশ প্রদান করতেন।

এছাড়াও তাদের  বহুতল ভবনের ছাদের একটি কক্ষ থেকে  হাতকড়া, ছোরা, দূরবীন, হকিস্টিক, লাঠি, মানুষের হাড়, রশি, ইয়াবা খাওয়ার কয়েলসহ কিছু জিনিস উদ্ধার করেছে র‍্যাব।

 

র‌্যাবের দাবি, এই কক্ষকে ‘টর্চার সেল’ হিসেবে ব্যবহার করতেন সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের ছেলে ইরফান সেলিম।

ইরফান নিজেও একজন জনপ্রতিনিধি; পুরান ঢাকার সোয়ারি ঘাট, মিটফোর্ড রোড ও আশপাশের এলাকা নিয়ে গঠিত ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের ৩০ নম্বর ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তিনি।

গতকাল রাতে ধানমণ্ডিতে নৌবাহিনীর একজন কর্মকর্তাকে ‘মারধরের’ জেরে সোমবার দুপুরে সোয়ারি ঘাটের দেবী দাস লেনে হাজী সেলিমের বাড়িতে অভিযান চালায় র‌্যাব।

নয়তলা ওই ভবনের তৃতীয় ও চতুর্থ তলা মিলিয়ে থাকতেন ইরফান চৌধুরী। সেখানে লাইসেন্সহীন দুটি বিদেশি পিস্তল, এক রাউন্ড গুলি, একটি এয়ারগান, ৩৭টি ওয়াকিটকি, একটি হাতকড়া এবং বিদেশি মদ ও বিয়ার পাওয়ার কথা জানিয়েছেন র‌্যাব কর্মকর্তারা।

ওই বাসা থেকে ইরফান ও তার দেহরক্ষী মোহাম্মদ জাহিদকে গ্রেপ্তার করে মদ্যপান ও ওয়াকিটকি ব্যবহারের জন্য বছর করে কারাদণ্ড দিয়েছে র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালত।

 

Comment here